সোমবার, ১৫ জুলাই ২০২৪, ৩১ আষাঢ় ১৪৩১

মাকাল ফলে আছে আশ্চর্য ভেষজ গুনাগুণ

মাকাল ফলে আছে আশ্চর্য ভেষজ গুনাগুণ

সংগৃহীত

মাকাল বা মাকাল ফলের ( Redball snakegourd) (Trichosanthes tricuspidata) গাছ একটি বহুবর্ষজীবী উদ্ভিদ। এর বৈজ্ঞানিক নাম Citrullus colocynthis। এটি  হচ্ছে Cucurbitaceae পরিবারের Trichosanthes গণের একটি লতানো উদ্ভিদ।

মাকাল শব্দটি বাংলা প্রবাদে বাজে অর্থে ব্যবহৃত হলেও এর প্রাচীন নাম ছিল মহাকাল যা ভেষজ গুণে অত্যন্ত সমৃদ্ধ। এই মহাকাল নামটির উচ্চারণ বিকৃত হয়ে কালে কালে মাকাল নামে বাংলায় স্থান হয়েছে।

সিলেটি ও অসমিয়া ভাষায় মাকাল কাউয়ালালি নামে পরিচিত। মাকালকে আরবিতে বলে হানজাল।

মাকাল গাছ লম্বায় ৩০ থেক ৪০ ফুট পর্যন্ত হয়ে থাকে। এর পাতায় থাকে অনেকগুলো খাঁজ। মাকাল ফল কাঁচা অবস্থায় গাঢ় সবুজ, কিছুদিন পর হলুদ ও পাকলে লাল বর্ণ ধারণ করে।

সাধারণত বর্ষাকালে মাকাল ফলের ফুল ও ফল হয়। মাকাল ফলের আদি নিবাস তুর্কি। তুর্কি থেকে এশিয়া ও আফ্রিকা মহাদেশে গাছটি বিস্তার লাভ করে। সারা পৃথিবীতে এর ৪২টি প্রজাতি দেখতে পাওয়া যায়। এর মধ্যে প্রায় ১২টি প্রজাতির মাকাল গাছ বাংলাদেশে দেখতে পাওয়া যায়।

চৈত্র বৈশাখে মাকাল গাছে সাদা ধবধবে ফুল ধরে। মাকাল ফল কাঁচা অবস্থায় গাঢ় সবুজ, কিছুদিন পর হলুদ ও পাকলে লাল বর্ণ ধারণ করে। শ্রাবণ-ভাদ্রে মাকাল ফল পাকে। তখন মনকাড়া এই ফলটিকে অবিকল আপেলের মতো দেখা যায়। গাছে ধরা অবস্থায় মাকাল ফলের মতো সুন্দর ফল সত্যি খুব কম দেখা যায়, তবে ভেতরটা খুবই কদর্য। এটি জঙ্গল বা বাড়ির বড় বড় গাছকে আশ্রায় করে ধীরে ধীরে বেড়ে ওঠে।

উদ্যান তত্ত্ববিদ উইলিয়াম মিথিউস মাকাল বা মাকালকে অন্তসার শূন্য ফল বলে অভিহিত করেছেন। যদিও মাকাল গাছের চমৎকার সব ঔষধি গুণাগুণ রয়েছে।

মাকাল গাছের ঔষধি গুণাগুণ

(১) মাথা ব্যথা হলে তেলের সঙ্গে মাকালের শিকড় চুবিয়ে ব্যবহার করলে মাথা ব্যথা ভালো হয়।

(২) মাকাল ফল খেলে হাঁপানি দ্রুত ভালো হয়।

(৩) ঠান্ডা লেগে নাক কানের সমস্যা দেখা দিলে মাকাল ফল খেলে উপকার পাওয়া যায়।

(৪) কুষ্ঠ রোগের ক্ষততে মাকাল গাছের শিকড় পিষে লাগালে কুষ্ঠ রোগ ভালো হয়।

(৫) মাকালের বীজের তেল ব্যবহার করলে সাপের কামড়ে উপকার পাওয়া যায়।

(৬) মাকাল ফলের নির্যাস লিপিড পার-অক্সিডেশনে বাধা প্রদান করে, লিভার থেকে টক্সিন বা বিষাক্ত পদার্থ দূর করতে সাহায্য করে।

(৭) জন্ডিস রোগ নিরাময়ে এই ফলের নির্যাস গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে।

(৮) দেহে কোনো কারণে পানি জমলে অর্থাত্‍ শোথ রোগে দেহ থেকে পানি দূর করতে মাকাল ফলের নির্যাস খুবই শক্তিশালী ওষুধ হিসেবে কাজ করে।

সূত্র: ডেইলি বাংলাদেশ

সর্বশেষ: