• শনিবার   ১৭ এপ্রিল ২০২১ ||

  • বৈশাখ ৪ ১৪২৮

  • || ০৫ রমজান ১৪৪২

কাজীপুরে গাছে গাছে শোভা পাচ্ছে আমের মুকুল

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ৬ মার্চ ২০২১  

কাজিপুর সিরাজগঞ্জ সংবাদদাতা: সিরাজগঞ্জের কাজিপুরের গান্ধাইলের আগমনী বার্তা ঋতুরাজ বসন্তের কথা জানান দিচ্ছে। ছড়িয়ে পড়ছে মুকুলের পাগল করা ঘ্রাণ, ভ্রমরের গুঞ্জন। আমের মুকুলে বেড়েছে মৌমাছি আনাগোনা।

মুকুলের মিষ্টি সৌরভ মন্ত্রের মতো টানছে তাদের। শাখায় প্রশাখায় তাই তুমুল ব্যস্ততা। বসন্তের স্নিগ্ধতা এনেছে স্বর্নালী মুকুল। বাতাসে এখন আমের মুকুলের মৌ মৌ গন্ধ। সেই গন্ধে বিমোহিত মানুষের মন প্রাণ। গ্রাম থেকে গ্রামান্তরে আমগাছ গুলো মুকুল নিয়ে সেজেছে হলদে রংয়ের এক অপরূপ সাজে। মুকুলের আধিক্য দেখে ভাল ফলনের আশায় বুক বাঁধছেন এই অঞ্চলের আম চাষিরা।

সরেজমিনে উপজেলার ১২ টি ইউনিয়ন ঘুরে দেখা গেছে, হলুদ সবুজ মিলিয়ে কেবলই মুকুল। মুকুলে মুকুলে ছেয়ে আছে গাছের প্রতিটি ডালপালা।কোন প্রাকৃতিক দুর্যোগ না ঘটলে এ বছর আমের বাম্পার ফলন হবে বলে আশা করছেন উপজেলার আম চাষীরা। বেশ কয়েকজন আম চাষির সাথে কথা বলে জানা গেছে, মৌসুমের শুরুতে আবহাওয়া অনুকূলে থাকায় মুকুলে ভরে গেছে আমের গাছগুলোতে। তবে বড় আকারের চেয়ে ছোট ও মাঝারি আকারের গাছে বেশি মুকুল এসেছে।

মুকুলের মৌ মৌ গন্ধে আম চাষীদের চোখে আসছে স্বপ্ন। উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মোঃ রেজাউল করিম জানান আম গাছের পরিচর্যা ও ভালো ফলন পেতে চাষীদেরকে নানাভাবে পরামর্শ দেওয়ার কথা জানিয়ে বলেন, আমের মুকুল আসার আগে ও পরে যেমন আবহাওয়া প্রয়োজন এখন তা বিরাজমান।

জানুয়ারি থেকে মার্চের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত আম গাছে মুকুল আসার আদর্শ সময়। কুয়াশা কম এবং উজ্জ্বল রোদ থাকায় আমের মুকুল সম্পূর্ণ প্রস্ফুটিত হওয়ার সম্ভাবনা শতভাগ। এবার গাছে যে পরিমানে মুকুল এসেছে ঝড় বৃষ্টির কারণে কিছু নষ্ট হলেও আমের ফলন এ তেমন কোনো প্রভাব পড়বে না বলে তারা মনে করেন।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ