শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

চিকিৎসায় কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ব্যবহার করবে বিএসএমএমইউ

চিকিৎসায় কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ব্যবহার করবে বিএসএমএমইউ

বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় (বিএসএমএমইউ) দেশের চিকিৎসা ব্যবস্থায় সর্বপ্রথম কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার ব্যবহার শুরু করতে যাচ্ছে। বুধবার (৩ মে) আয়োজিত এক সেমিনারে এ কথা জানান মেডিকেলের উপাচার্য মো. শারফুদ্দিন আহমেদ। এ সময় তিনি বলেন, দেশের চিকিৎসা ব্যবস্থাকে এগিয়ে নিয়ে যাবে এ প্রযুক্তি।

 

উপাচার্য বলেন, রোবটিক সার্জারিও যদি এখন শুরু না করি, তবে ২০ বছর পিছিয়ে যাব। পাশের দেশে এরই মধ্যে এটি শুরু করে দিয়েছে। তাই বাংলাদেশেও এটা আমরা শুরু করতে চাই।

তিনি বলেন, আমি এরই মধ্যে উদ্যোগ নিয়েছি। আশা করি, শিগগিরই এ বিষয়ে উদ্যোগ নেব। আর এই যে ইনভেস্টিগেশন, স্ক্রিনিং, এমনকি ক্যানসার হয়েছে কিনা, হবে কিনা, পূর্বাভাস ওষুধ যাবতীয় বিষয়ে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা খুব জরুরি।
 
একুশ শতকে জীবনযাত্রার সব ক্ষেত্রেই আছে প্রযুক্তির ব্যবহার। শিক্ষা, চিকিৎসা, গবেষণা ও ব্যবসায় দখল করে নিয়েছে আর্টিফিশিয়াল ইন্টেলিজেন্স বা কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা।

 

উন্নত দেশগুলোতে এরই মধ্যে চিকিৎসা বিজ্ঞানে কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তার ব্যবহার গ্রহণযোগ্যতা পেয়েছে। রোগীর প্রাথমিক চিকিৎসা থেকে শুরু করে বড় ধরনের অস্ত্রপচারও সহজেই সম্পন্ন করা যাচ্ছে ‘এআই’- এর সাহায্যে।
 
বাংলাদেশের চিকিৎসা ব্যবস্থায় কৃত্রিম বুদ্ধিমত্তা ব্যবহার এখন সময়ের ব্যাপার। আর প্রথমবার এ প্রযুক্তিতে চিকিৎসা প্রক্রিয়া শুরু করতে যাচ্ছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়। ক্যানসার ও বন্ধ্যাত্বের চিকিৎসা, গর্ভে থাকা শিশু স্বাস্থ্যের সার্বিক অবস্থা নির্ণয়, হৃদরোগসহ সব ধরনের চিকিৎসায় ব্যবহার করা হবে এ প্রযুক্তি।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ