মঙ্গলবার, ২৮ মে ২০২৪, ১৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১

যেভাবে গড়ে তুলতে পারি পাঠাভ্যাস

যেভাবে গড়ে তুলতে পারি পাঠাভ্যাস

সংগৃহীত

ভালো কাজগুলোর একটি হলো- বই পড়া। কেননা এর মাধ্যমে আমরা জ্ঞান অর্জন করি এবং এতে আমাদের চিন্তাশক্তি বিকশিত হয়।

তবে অনেকের মাঝেই বই পড়ার অভ্যাস থাকে না। অনেকে পাঠাভ্যাস গড়ে তোলার চেষ্টা করে ব্যর্থ হন। এই বিষয়টি নিয়ে আমি জানার চেষ্টা করেছি। অনেক ঘাঁটাঘাঁটি করে জানতে পারি, কিছু বিষয় অনুসরণ করলে পাঠাভ্যাস গড়ে তোলা সম্ভব। ভাবলাম আমার প্রাপ্ত তথ্যটুকু হ্যালোর মাধ্যমে সবার সামনে তুলে ধরি।

পাঠাভ্যাস গড়ে তোলার জন্য শুরুতেই লক্ষ্য নির্ধারণ করে নেওয়া ভালো। কতটুকু সময়ের মধ্যে কতটি বই পড়ব তা নির্ধারণ করে নিতে হবে। কারো জন্য প্রতি মাসে দুইটি বই শেষ করা লক্ষ্য হতে পারে অথবা আবার কারো হতে পারে প্রতি মাসে একটি করে বছরে ১২টি বই। নিজের সক্ষমতা বুঝে লক্ষ্য নির্ধারণ করে নিলে এগিয়ে যাওয়া সম্ভব হয়।

পাঠাভ্যাস গড়ে তোলার জন্য আরেকটি প্রয়োজনীয় বিষয় হলো বইয়ের তালিকা তৈরি করে নেওয়া। এজন্য আমরা বন্ধু বান্ধব ও বই পড়ুয়াদের কাছ থেকে পরামর্শ নিতে পারি বা ইন্টারনেট ঘেঁটেও বিভিন্ন বইয়ের তথ্য নিতে পারি।

এর পাশাপাশি রোজা নির্দিষ্ট পৃষ্ঠা অনুযায়ী পড়ার অভ্যাস গড়ে তোলা উচিত। প্রতিদিন নির্দিষ্ট পরিমাণ পৃষ্ঠা পড়তে পারলে, বইয়ের প্রতি আকর্ষণ বাড়তে থাকে। পৃষ্ঠার পাশাপাশি দিনের নির্দিষ্ট সময় কিংবা সপ্তাহের নির্দিষ্ট দিন ঠিক করেও বই পড়া যেতে পারে।

বই পড়ার জন্য প্রয়োজন নীরব জায়গা। এ সময় প্রযুক্তি থেকেও দূরে থাকা প্রয়োজন। বইয়ের সঙ্গে নিবিড় সম্পর্ক স্থাপন করতে পাঠাগারে যাতায়াতের অভ্যাস করাটাও একটা ভালো উপায় হতে পারে।

সবশেষে দরকার হলো পড়ার মাঝে আনন্দ খুঁজে বের করা। যে কোনো কাজে আনন্দ খুঁজে পাওয়াটা সব সময় জরুরি। পাঠাভ্যাসের ক্ষেত্রেও ঠিক তাই। আমরা এই বিষয়গুলো অনুসরণ করে পাঠাভ্যাস গড়ে তোলার চেষ্টা করতে পারি।

সূত্র: bdnews24