• বুধবার   ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ৭ ১৪২৮

  • || ১৫ সফর ১৪৪৩

কবরস্থানে হাত তুলে দোয়া করা যাবে?

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ১০ জুলাই ২০২১  

কবরস্থানের বিষয়ে হাদিসে দুটি আমল প্রমাণিত। প্রথমত, কবর জিয়ারত করা। দ্বিতীয়ত, কবরের পাশে দাঁড়িয়ে দোয়া করা।

নবী করিম (সা.) মদিনায় জান্নাতুল বাকি নামক কবরস্থানে হাত তুলে দোয়া করেছেন। এ জন্য কবরস্থানে হাত তুলে দোয়া করা যাবে। (মুসলিম শরিফ: হাদিস নং ৯৭৪, ফতোয়ায়ে আলমগিরি: খণ্ড-১, পৃষ্ঠা-১৬৯)

দোয়া করার জন্য কবরস্থানে যাওয়া শর্ত নয়। ঘরে বসে দোয়া করলে যে কথা, কবরে গিয়ে দোয়া করলেও সেই কথা। দোয়া তো করবেন আল্লাহর কাছে। কবরে যাওয়ার প্রয়োজন হচ্ছে নিজের জন্য, কবর থেকে শিক্ষা নেয়ার জন্য। যদি কোনো কারণে আপনি কবরের সেই জায়গায় যান, তাহলে আপনি তাদের কবর জিয়ারত করবেন। সেখানে আপনি নিজের অন্তরকে আল্লাহমুখী করতে পারবেন, আখেরাতমুখী করতে পারবেন।

জিয়ারতের দোয়া

আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস (রা.) থেকে বর্ণিত, রাসুলুল্লাহ (সা.) মদিনার কবরবাসীর পাশ দিয়ে যাওয়ার সময় এই দোয়া পাঠ করেন—

السَّلاَمُ عَلَيْكُمْ يَا أَهْلَ الْقُبُورِ يَغْفِرُ اللَّهُ لَنَا وَلَكُمْ أَنْتُمْ سَلَفُنَا وَنَحْنُ بِالأَثَرِ

উচ্চারণ: আসসালামু আলাইকুম ইয়া আহলাল কুবুর; ইয়াগফিরুল্লাহু লানা ওয়ালাকুম, আনতুম সালাফুনা ওয়া নাহনু বিল আ-সার।

অর্থ: হে কবরবাসী! তোমাদের ওপর শান্তি বর্ষিত হোক। আল্লাহ আমাদের ও তোমাদের ক্ষমা করুন, তোমরা আমাদের আগে কবরে গিয়েছ এবং আমরা পরে আসছি। (সুনানে তিরমিজি, হাদিস : ১০৫৩)

আবু হুরায়রা (রা.) থেকে বর্ণিত হয়েছে, একবার রাসুল (সা.) একটি কবর জিয়ারতে গিয়ে বলেন—

السَّلامُ عَلَيْكُمْ دَارَ قَوْمٍ مُؤمِنينَ وإِنَّا إِنْ شَاءَ اللَّهُ بِكُمْ لاحِقُونَ

উচ্চারণ: আসসালামু আলাইকুম দারা ক্বাওমিম মুমিনিন ওয়া ইন্না ইনশাআল্লাহু বিকুম লা-হিকুন।

অর্থ: মুমিন এই ঘরবাসীদের ওপর শান্তি বর্ষিত হোক। ইনশাআল্লাহ আমরা আপনাদের সঙ্গে মিলিত হবো। (সহিহ মুসলিম : ২৪৯)

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ