• শুক্রবার   ০৭ আগস্ট ২০২০ ||

  • শ্রাবণ ২৩ ১৪২৭

  • || ১৭ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১

৩০

এসি ছাড়াই জাদুর মতো ঘর ঠাণ্ডা রাখবে লবণ পানি!

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ১৩ জুন ২০২০  

করোনার সঙ্গে সঙ্গে বাড়ছে গরমের তাণ্ডবও। গরমে অতিষ্ঠ হয়ে পড়েছে সবাই। তাছাড়া সারাদিন ঘরে বন্দী থেকে গরম দহ্য করাও কষ্টকর হয়ে পড়ছে। তাই বাড়ছে এসির ব্যবহার। যা এই করোনাকালে সংক্রমণের ঝুঁকি বাড়াতে পারে। তাছাড়া এসির কারণে ঠাণ্ডা লাগার ভয়ও রয়েছে।

তাই বলে গরম সহ্য করাটাও সম্ভব নয়। তবে এমন কিছু উপায় রয়েছে, যার মাধ্যমে এসি ছাড়াই আপনার ঘর থাকবে ঠাণ্ডা! ঘরোয়া এসব সহজ কৌশলে গরমের দাপট কমার সঙ্গে সঙ্গে আপনার বিদ্যুৎ বিলও কমবে! দেরি না করে চলুন জেনে নেয়া যাক সেই কৌশলগুলো-  

> ঘর মোছার সময় জীবাণুনাশক তরলের সঙ্গে সামান্য লবণ মিশিয়ে নিন। লবণ পানি তাপের ভারসাম্য বজায় রাখে। এতে মেঝে থেকে উঠে আসা গরমের হাত থেকে রক্ষা পাওয়া সহজ হয়। আর ঘর থাকে ঠাণ্ডা। 

> ঘড়ির কাঁটা এগারোটা ছাড়ালেই ঘরের জানালা বন্ধ করে দিন। সঙ্গে পর্দা টেনে পাখা চালিয়ে রাখুন। এতে ঘরে তাপ কম ঢুকবে। আর এতেই আরাম পাবেন। বিকালের দিকে রোদ পড়ে এলে জানলা খুলে দিন। এতে বিকালের ঠাণ্ডা হাওয়া ঘরে ঢুকবে।

> খসখসের পর্দা ব্যবহার করুন। খসখসে পর্দা ব্যবহারের চল আগেও ছিল। ঘরের তাপ কমাতে এই ধরনের পর্দা ব্যবহার করতে পারেন। জানালায় 
খসখসে পর্দা টাঙিয়ে রাখুন। মাঝেমধ্যেই তাতে পানি ছিটিয়ে ভিজিয়ে নিন। ঘর থাকবে অনেক ঠাণ্ডা ও আরামদায়ক।

> ঘরের মধ্যে ছোট ছোট টবে রাখতে পারেন সবুজ রঙের বাহারি গাছ। এতে ঘরের সৌন্দর্যও বাড়বে, সঙ্গে গাছের উপস্থিতিতে তাপমাত্রা নিয়ন্ত্রণে থাকবে।

> ঘরে কম ওয়াটের আলো জ্বালান। দরকার ছাড়া ঘরে বেশি ক্ষমতাযুক্ত বাতি জ্বালাবেন না। টিউব বা বালবের গা থেকে তাপ বিকিরণের ফলেও ঘর কিছুটা গরম হয়। কম ওয়াটের বালবে সে সুযোগ কম থাকে।

> ঘরে ব্যবহার করুন হালকা রঙের পর্দা। হালকা রঙের তাপ শোষণ ক্ষমতা কম থাকে। তাই হালকা রঙের পর্দায় বাইরের তাপ কম শোষিত হয়। ঘরের তাপমাত্রা কম রাখতে হালকা রঙের পর্দা সাহায্য করে। সুতি বা লিনেনের মতো প্রাকৃতিক ফ্যাব্রিকের পর্দা এবং বেড শিট ব্যবহার করুন। এই ধরনের পর্দা তাপ প্রতিফলিত করবে, তার ফলে ঘর ঠাণ্ডা থাকবে।

> এগজস্ট ফ্যান ব্যবহার করুন। রান্না করার সময় আগুনের তাপে ঘর গরম হয়ে যায়। তাই অবশ্যই এগজস্ট ফ্যান চালিয়ে রাখুন।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ
লাইফস্টাইল বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর