শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৪ শ্রাবণ ১৪৩১

আইসিসি টি-২০ বিশ্বকাপ - ২০২৪

সুপার এইটে উইন্ডিজ, অলিখিত বিদায় কিউইদের

সুপার এইটে উইন্ডিজ, অলিখিত বিদায় কিউইদের

সংগৃহীত

জিতলে সুপার এইটের আশা জমিয়ে রাখতো নিউজিল্যান্ড। আর হারলেই টুর্নামেন্ট থেকে অলিখিত বিদায় ঘণ্ট বাজতো তাদের। বাঁচা-মরার লড়াইয়ের এমন সমীকরণে ওয়েস্ট ইন্ডিজের কাছে হারের তেতো স্বাদ পেয়েছে কিউইরা। এতে চলমান টি-২০ বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গেল দলটি। অন্যদিকে টানা তৃতীয় জয়ে ‘সি’ গ্রুপ থেকে সবার আগে সুপার এইট নিশ্চিত করেছে স্বাগতিকরা।

ত্রিনিদাদের ব্রায়ান লারা ক্রিকেট অ্যাকাডেমিতে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৪৯ রান সংগ্রহ করে উইন্ডিজ। লক্ষ্য তাড়ায় ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৩৬ রানে থেমেছে কিউইরা। উইন্ডিজের জয় ১৩ রানে।

লক্ষ্য তাড়ায় সাবধানী শুরু করে নিউজিল্যান্ড। দলটির হয়ে ইনিংস উদ্বোধনে নামে ফিন অ্যালেন ও ডেভন কনওয়ে। ইনিংসের শুরু থেকে দেখেশুনে খেলেন তারা। কিন্তু ভয় ধরানোর আগে কনওয়ের উইকেট ঝুলিতে ভরেন আকিল হোসেন।

পরে উইকেটে আসেন রাচিন রবীন্দ্র। এরপরেই আলজারি জোসেফের বলে আন্দ্রে রাসেলের তালুবন্দী হন অ্যালেন। আউট হওয়ার ২৬ করেন তিনি।

তার বিদায়ে ক্রিজে আসেন কেন উইলিয়ামসন। তবে ব্যাট হাতে ফের ব্যর্থ হয়ে ফেরেন কিউই দলপতি। পরে উইকেটে এসে রবীন্দ্রকে নিয়ে প্রতিরোধ গড়ার চেষ্টা করেন ড্যারিল মিচেল। কিন্তু রবীন্দ্র (১০) আউট হলে তাদের জুটি ভেঙে যায়। 

রবীন্দ্রর পরপরেই উইকেট বিলিয়ে দেন মিচেলও। পরে জেমস নিশামকে নিয়ে প্রতিরোধ গড়েন গ্লেন ফিলিপস। তবে এ জুটি ভাঙেন আলজারি। তাতে আবারও ম্যাচ থেকে ছিটকে যায় নিউজিল্যান্ড।

শেষ পর্যন্ত গ্লেন ফিলিপস ও মিচেল স্যান্টরারের ব্যাটে স্রেফ হারের ব্যবধান কমিয়েছে নিউজিল্যান্ড। উইন্ডিজের হয়ে চার উইকেট শিকার করেন আলজারি জোসেফ। এছাড়া তিন উইকেট নিয়েছেন গুদাকেশ মোদি।

এর আগে টস হেরে ব্যাট করে উইন্ডিজ। দলটির হয়ে যথারীতি ইনিংস উদ্বোধনে নামেন জনসন চার্লস ও ব্রেন্ডন কিং। তবে ভয়ংকর হয়ে ওঠার আগেই এ জুটি ভাঙেন ট্রেন্ট বোল্ট। এতে শূন্য রানে সাজঘরে ফেরেন জনসন।

পরে ক্রিজে এসে সাবধানে এগোতে থাকেন নিকোলাস পুরান। কিন্তু টিম সাউদির বলে উইকেটের পেছনে কনওয়ের দুর্দান্ত ক্যাচে সাজঘরের পথ ধরেন তিনিও। এরপর শুধু আসা-যাওয়ার মিছিলে যোগ দেন ক্যারিবীয়রা। ব্যাট হাতে পুরোপুরি ব্যর্থ হয়েছেন রস্টন চেজ (০), রভম্যান পাওয়েল (১) ও ব্রেন্ডন কিং (৯)।

মাঝে অবশ্য আকিল হোসেন, আন্দ্রে রাসেল ও রোমারিওর ব্যাটে কিছু রান পায় উইন্ডিজ। আর শেষ মুহূর্তে রাদারফোর্ডের ঝোড়ো ব্যাটিংয়ে চ্যালেঞ্জিং পুঁজি পেয়েছে স্বাগতিকরা। তার অপরাজিত ৬৮ রানে ক্যারিবীয়দের ইনিংস থামে ১৪৯ রানে।

নিউজিল্যান্ডের হয়ে সর্বোচ্চ ৩ উইকেট শিকার করেন ট্রেন্ট বোল্ট। এছাড়া দুটি করে উইকেট নেন টিম সাউদি ও লকি ফার্গুসন।

সূত্র: ডেইলি বাংলাদেশ

সর্বশেষ: