• বুধবার   ১০ আগস্ট ২০২২ ||

  • শ্রাবণ ২৬ ১৪২৯

  • || ১৩ মুহররম ১৪৪৪

উইন্ডিজকে দিয়ে মাহমুদ উল্লাহদের সামনে বিশ্বকাপের প্রস্তুতি

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ২ জুলাই ২০২২  

স্কটল্যান্ডের কাছে হেরে মিশন শুরু। এরপর ওমান আর পাপুয়া নিউ গিনিকে হারিয়ে কোনো রকম প্রথম পর্ব পার করে সুপার টুয়েলভ পর্বের টিকিট পায় বাংলাদেশ দল। সুপার টুয়েলভে খুলতে পারেনি জয়ের খাতা। টানা ৫ ম্যাচে হেরে বিধ্বস্ত লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। এই ছিল টাইগারদের সবশেষ টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ব্যর্থ মিশন। চলতি বছর চ্যালেঞ্জটা আরো বেশি। অক্টোবরে কুড়ি ওভারের বিশ্বকাপ বসবে অস্ট্রেলিয়ায়।

এবার সুপার টুয়েলভে কোয়ালিফাই করার চ্যালেঞ্জ নেই বাংলাদেশ দলের সামনে। সেরা ৮ দলের একটি হয়ে বিশ্বকাপের দ্বিতীয় বা মূল পর্বে অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহর দল। তাই চ্যালেঞ্জটা আরো বেশি, শুরু থেকেই লড়তে হবে কঠিন সব প্রতিপক্ষের বিপক্ষে। গত বিশ্বকাপের পর গদি কিছুটা নড়বড়ে মাহমুদউল্লাহর। এবার তার দলের সঙ্গে নিজেরও অস্তিত্ব প্রমাণ দেওয়ার লড়াই। সেই লড়াইয়ের শুরুটা হচ্ছে উইন্ডিজের বিপক্ষে ৩ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজ দিয়ে।

ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টিতে আজ মাঠে নামবে সফরকারী বাংলাদেশ। ম্যাচটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় রাত সাড়ে ১১টায়। এই ফরম্যাটে রেকর্ড ২ বারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন উইন্ডিজ। মাহমুদউল্লাহ বাহিনীর লক্ষ্য তাদের হারিয়ে বিশ্বকাপে যাওয়ার আগে আত্মবিশ্বাসের পালে হাওয়া দিয়ে নেওয়া।

সেন্ট লুসিয়া থেকে ডোমিনিকার ভয়াবহ ফেরি জার্নির ধকল অনেকটাই কাটিয়ে উঠেছে বাংলাদেশ দল। তবে আজ শনিবার ম্যাচটি ভেসে যাওয়া নিয়েও আছে শঙ্কা। ডোমিনিকার আবহাওয়া ভালো বার্তা দিচ্ছে না। বৃষ্টির কারণে ম্যাচের আগে সেখানে একটি স্কিল অনুশীলন সেশন করার কথা ছিল সফরকারীদের। শুক্রবারের সেই অনুশীলনে বাংলাদেশ দল নামতে পারেনি। এমনকি দেখতে পারেনি উইকেটের হালচাল।

প্রস্তুতি আর উইকেট নিয়ে ম্যাচের আগের দিন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ বললেন, ‘(শুক্রবার) বৃষ্টি পড়ছে, আবহাওয়ার কন্ডিশন সেই সুযোগ দেয়নি। সেন্ট লুসিয়ায় অনুশীলন সেশনে ফুটবল খেলেছি আর ৪০ মিনিটের ফিল্ডিং সেশন করেছি। কাল এসে কন্ডিশন দেখে মানসিকভাবে আমাদের ওভাবে প্রস্তুতি নিতে হবে। আমি ওদের বলেছি- যারা মানসিকভাবে এগিয়ে থাকবে, বিশেষভাবে আমাদের কথা বলেছি, আমাদের খেলোয়াড়রা মানসিকভাবে প্রস্তুত থাকতে পারলে এটাই ভালো করার সবচেয়ে ভালো সুযোগ।’

সঙ্গে যোগ করেন মাহমুদউল্লাহ, ‘আমি মনে করি প্রস্তুতি আসে এখান থেকে (হাত দিয়ে মস্তিস্ক ইশারা করে)। টি-টোয়েন্টিতে আপনি খুব কম সময় পাবেন। তাই যে কন্ডিশন থাকবে সেটা নিয়ে মনোযোগী হতে হবে। গেম সেন্স প্রয়োগ করতে হবে। আমাদের মূলমন্ত্র হবে ইতিবাচক ও আগ্রাসী থাকা। যে চ্যালেঞ্জই আসুক, নিতে হবে।’

এদিন শঙ্কা উড়িয়ে ম্যাচ মাঠে গড়ালে ওপেনিং জুড়িতে আবার নতুনত্ব দেখা যাওয়ার ইঙ্গিত মিলেছে। মুনিম শাহরিয়ারের সঙ্গে ইনিংস শুরু করতে পারেন এনামুক হক বিজয়। তবে বাংলাদেশ দলের সামনে চ্যালেঞ্জ থাকবে সদ্য বিধ্বস্ত হওয়া টেস্ট সিরিজের দুর্বিষহ স্মৃতি ভুলে টি-টোয়েন্টিতে মনোযোগ ধরে রাখা। ডোমিনিকার স্মৃতিমধুর স্টেডিয়ামে সেই কাজটি মাহমুদউল্লাহর দল কতটা ঠিকঠাক ভাবে করে এখন সেটিরই দেখার অপেক্ষা।

এক নজরে প্রথম টি-টোয়েন্টির জন্য বাংলাদেশের সম্ভাব্য একাদশ-
মুনিম শাহরিয়ার, এনামুল হক বিজয়, লিটন দাস, সাকিব আল হাসান, মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ (অধিনায়ক), আফিফ হোসেন ধ্রুব, শেখ মেহেদী হাসান, মুস্তাফিজুর রহমান, শরিফুল ইসলাম, তাসকিন আহমেদ ও নাসুম আহমেদ।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ