শুক্রবার, ০১ মার্চ ২০২৪, ১৭ ফাল্গুন ১৪৩০

ঢাকাসহ ১৭ অঞ্চলে ঝোড়ো বৃষ্টির আভাস

ঢাকাসহ ১৭ অঞ্চলে ঝোড়ো বৃষ্টির আভাস

সংগৃহীত

দেশের উত্তরের শীত প্রবণ জেলা পঞ্চগড়। এখানে নভেম্বরে শীতের আমেজ শুরু হলেও ডিসেম্বরে তাপমাত্রা রেকর্ড হয়ে থাকে ১১-১৪ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে। কিন্তু এ বছর ডিসেম্বরে গতবারের তুলনায় বেশি তাপমাত্রা রেকর্ড হচ্ছে।

গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে পঞ্চগড়ের তেঁতুলিয়ায় ১৭ দশমিক ৬ ডিগ্রি তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে। যা দেশের সর্বনিম্ন। অথচ গতকাল বুধবার তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছিল ১৪ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গত বছর ৭ ডিসেম্বর আজকের দিনে তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছিল ১২ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। তাপমাত্রার এ তথ্যটি জানিয়েছেন প্রথম শ্রেণির আবহাওয়া অধিদপ্তরের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাসেল শাহ।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের তথ্যানুযায়ী, ২০২২ সালের ডিসেম্বরের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত ১২ থেকে ১১ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে। তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে। গত বছর ৬ ডিসেম্বর ১১ দশমিক ৯ ডিগ্রি, ৭ ডিসেম্বর ১২ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড হয়েছিল। তবে গত ৩ থেকে ৫ ডিসেম্বর ১৪ ডিগ্রির নিচে তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে। গত দুদিন কমেছে দিনের তাপমাত্রাও। ২৬ থেকে ২৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসের মধ্যে তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে।

স্থানীয়রা জানান, এ অঞ্চলে পৃথিবীর উচ্চতম হিমালয়-কাঞ্চনজঙ্ঘা পর্বতশৃঙ্ঘ থাকায় শীতের অক্টোবরের শেষ থেকে শুরু হয় শীতের আমেজ। নভেম্বরের শুরু থেকে কমতে থাকে তাপমাত্রা। তাপমাত্রা কমার সঙ্গে বাড়তে শুরু করেছে শীতের পরশ। দিনের তাপমাত্রা স্বাভাবিক থাকলেও বিকেল গড়লেই হিমেল হাওয়ায় শীতের পরশ অনুভূত হয়। সন্ধ্যা থেকে ভোর পর্যন্ত বইতে থাকে শীতের প্রকোপ। ভোরে দেখা মেলে কুয়াশার চাদরে জড়িয়েছে প্রকৃতি। সে কুয়াশায় ঠান্ডা অনুভূত হচ্ছে। শীত ঘিরে বেড়েছে শীতের পোশাকের চাহিদা।  

শীতকে কেন্দ্র করে নিম্নবিত্ত মানুষেরা শীত নিবারণে বিভিন্ন হাটবাজারে ফুটপাত দোকানে কাপড় কিনছেন। তবে এখনো সেভাবে শীত পড়েনি এখনো। বিভিন্ন হাটবাজার ও শহরের বিভিন্নস্থানে ফুটপাতে বসছে শীতের কাপড়ের দোকান। এসব দোকানে মিলছে সোয়েটার, জ্যাকেট, মাফলার, ট্রাউজার, টুপিসহ বিভিন্ন রকমের শীতের কাপড়। নিম্নবিত্ত মানুষেরা তাদের আয়ের সাধ্যমত কিনছেন এসব কাপড়।

এদিকে শীত ঘিরে বেড়েছে নানান শীতজনিত রোগ। এসব রোগব্যাধি থেকে সুরক্ষিত থাকতে চিকিৎসকরা শীতে রোগীদের স্বাস্থ্যসেবা মেনে চলার পরামর্শ দিচ্ছেন।

তেঁতুলিয়া আবহাওয়া পর্যবেক্ষণাগারের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. রাসেল শাহ জানান, হিমপ্রবণ জেলা হিসেবে পঞ্চগড়ে অন্যান্য জেলা থেকে এখানে শীত পড়ে আগে। এ অঞ্চলে নভেম্বর থেকেই শীতের আমেজ শুরু হয়। বৃহস্পতিবার সকালে দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৭ দশমিক ৬ ডিগ্রি রেকর্ড হয়েছে।

গতকাল থেকে তাপমাত্রা বেড়েছে ৩ ডিগ্রি। বুধবার তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছিল ১৪ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। দিনের তাপমাত্রা রেকর্ড হয়েছে ২৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গত মঙ্গলবার ছিল ২৬ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াল। তবে গত ডিসেম্বরের তুলনায় এবার শীত কম। গত বছর ৭ ডিসেম্বর ১২ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছিল। তবে সামনে তাপমাত্রা আরও কমে আসবে বলে তিনি জানান।

সূত্র: DHAKA POST