• বুধবার   ২২ সেপ্টেম্বর ২০২১ ||

  • আশ্বিন ৭ ১৪২৮

  • || ১৫ সফর ১৪৪৩

মক্কা প্রস্তুত হজের জন্য, বসানো হয়েছে ৮৭৫ লাইটিং টাওয়ার

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ৫ জুলাই ২০২১  

স্বয়ংক্রিয় মেশিনের সাহায্যে কাবা শরীফের ছাদ পরিষ্কার করা হয়েছে। কাবা শরিফের কালো গিলাফ নিচ থেকে তিন মিটার ওপরে উঠিয়ে অতিরিক্ত সাদা কাপড়ে আবৃত করার মাধ্যমে শুরু হয়েছে এবারের হজের প্রাথমিক প্রস্তুতি। এবার অত্যাধুনিক প্রযুক্তির সাহায্যে কাবার ছাদ পরিষ্কার করা হয়েছে। মহামারির কারণে এবার হজ ব্যবস্থাপনায় প্রযুক্তি ব্যবহারে প্রাধান্য দিচ্ছে সৌদি কর্তৃপক্ষ।

গত বুধবার (৩০ জুন) রাতে মসজিদে হারাম ও মসজিদে নববির জেনারেল প্রেসিডেন্সির ড. শায়খ আব্দুর রহমান সুদাইসির তত্ত্বাবধানে ৩৭ জন কর্মকর্তা এ কাজ সম্পন্ন করেন। পবিত্র হজকে নির্বিঘ্ন করতে মক্কা, আরাফা,মুজদালিফা ও মিনায় বসানো হয়েছে ৮৭৫ লাইটিং টাওয়ার। খবর আল-আরাবিয়া ডটনেট (আরবি)।

মক্কায় হজ মন্ত্রণালয়ের পক্ষ থেকে জানানো হয়, এ বছর হজের জন্য প্রয়োজনীয় সব পদক্ষেপ ও প্রস্তুতি সম্পন্ন। এখন হজের অপেক্ষা। সৌদি আরব সরকার এ বছর হজ উপলক্ষে হজযাত্রীদের সহায়তা ও সহজতার জন্য সম্ভাব্য সব পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে। রাতের বেলা হজযাত্রীদের যেনো আলো নিয়ে কোনো সমস্যা তৈরি না হয়, সেজন্য হজের সময় পবিত্র স্থান- মক্কা,আরাফা, মুজদালিফা ও মিনায় আলোকসজ্জার টাওয়ার স্থাপন করা হয়েছে।

মক্কা সচিবালয়ের কর্মকর্তারা আল-আরবিয়া ডটকমকে জানান, হজের সময়ের জন্য পবিত্র স্থানগুলোতে ৮৭৫টি লাইটিং টাওয়ার স্থাপন করা হয়েছে। এছাড়াও বিভিন্ন উচ্চতার ভিন্ন ডিজাইনের ৩২১৪টি নতুন হালকা খুঁটি বসানো হয়েছে। নিরবিচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সংযোগ ব্যবস্থাপনার জন্য এই টাওয়ারগুলোতে ৩৫৩টি বৈদ্যুতিক প্যানেল স্থাপন করা হয়েছে।

পবিত্র নগরী মক্কা জুড়ে হালকা টাওয়ারে স্থাপন করা নেটওয়ার্কে ১ লাখ ২০,০০০ লাইট (বিভিন্ন ধরনের বাল্ব) বসানো হয়েছে। এ লাইটগুলোতে (বাল্ব) এ ১৯০০ বৈদ্যুতিক বিতরণ প্যানেল স্থাপন করা হয়েছে।

দেশটির হজ ও ওমরাহ মন্ত্রণালয়ের তথ্য মতে, হজ চলাকালীন আলোর কোনো সমস্যা যেন না হয়; এ ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। ২৪ ঘণ্টা বিদ্যুৎ ব্যবস্থাপনা ও নেটওয়ার্ক কার্যক্রম সম্পন্ন করার জন্য প্রযুক্তিবিদদের একটি অভিজ্ঞ দলও গঠন করা হয়েছে।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ