• বৃহস্পতিবার   ৩০ জুন ২০২২ ||

  • আষাঢ় ১৬ ১৪২৯

  • || ৩০ জ্বিলকদ ১৪৪৩

কাজিপুরে কাল বৈশাখির ছোবল- লন্ডভন্ড পঞ্চাশটি পরিবার

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ৩০ এপ্রিল ২০২২  

বছরের প্রথম কাল বৈশাখি ঝড় সিরাজগঞ্জের কাজিপুর উপজেলায় ব্যাপক তান্ডব চালিয়েছে। গত শুক্রবার রাত সাড়ে দশটা থেকে এগারটা অবধি এই ঝড়ে উপজেলার বিভিন্ন গ্রামের পঞ্চাশটি পরিবারের ঘরবাড়ির উপর গাছের গুড়ি পড়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে। ঝড়ের পর থেকে শনিবার বেলা তিনটা পর‌্যন্ত পুরো উপজেলায় বিদ্যুৎ সরবরাহ বন্ধ রয়েছে।

 শনিবার সকাল থেকে দুপুর অবধি কাজিপুরের ক্ষতিগ্রস্ত হরিনাথপুর, কুনকুনিয়া বিলচতল, কবিহার, বাওইখোলা, মাথাইলচাপড় গ্রাম ঘুরে দেখা গেছে ঝড়ের তান্ডবে গাছপালা উপড়ে পড়েছে। কোথাও ডালপালা ভেঙ্গে গাছের সাথে ঝুলে রয়েছে। নির্মানাধীন চালিতাডাঙ্গা বিদ্যুৎ উপকেন্দ্রের নিকট দিনটি বিদ্যুতের খুঁটি ভেঙ্গে তার ছিড়ে মাটিতে পড়ে রয়েছে।

 সোনামুখী ইউনিয়নের হরিনাথপুর হাটের দেড়শ বছরের পুরনো বটগাছ উপড়ে পাশের আধাপাকা দোকান ঘরের উপর পড়েছে। এতে করে পুরো দোকানঘর দুমড়ে মুছড়ে গেছে।

 মাইজবাড়ি ইউনিয়নের কুনকুনিয়া( মাইজবাড়ি মাদ্রাসা সংলগ্ন) গ্রামের জাহাঙ্গীর ও আব্দুল কাদেরের ঘরের উপর গাছ ভেঙ্গে পড়েছে।এতে করে ওই দুই পরিবারের লোকজন খাটের নিচে আশ্রয় নিলে সেখানেই আটকা পড়ে। পরে তাদের ডাক চিৎকারে ঝড় থেমে গেলে প্রতিবেশিরা এসে তাদের উদ্ধার করে।

মাইজবাড়ি ইউপি সদস্য সুলতান মাহমুদ জানান, ঝড়ে আমার এলাকার বিশটি পরিবার ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে। এদের অনেকেরই ভেঙ্গে পড়া গাছপালা অপসারণের সাধ্য নেই।

 কাজিপুর উপজেলা সহকারি কমিশনার(ভূমি) বিএম আরিফুল ইসলাম সকাল থেকে দুপুর অবধি ফায়ার সার্ভিসকে সাথে নিয়ে ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা ঘুরে দেখেছেন্। তিনি জানান, ঝড়ে ঘরবাড়ি, গাছপালার ক্ষতি হয়েছে। তবে কোন প্রাণহানির ঘটনা ঘটেনি। আমরা ক্ষতিগ্রস্তদের তালিকা তৈরি করতে সংশ্লিষ্ট এলাকার জনপ্রতিনিধিদের  বলেছি।

এদিকে সিরাজগঞ্জ পল্লী বিদ্যু সমিতি-২(কাজিপুর) এর ডিজিএম আবদুল্লাহ আল আমিন জানান, ঝড়ের পর থেকেই আমরা লাইন মেরামতের কাজে মেনে পড়েছি। ক্ষতি অনেক হয়েছে। এরমধ্যে কিছু লাইন শনিবার বিকেলে চালু করেছি।

 মুঠোফোনে কাজিপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা জাহিদ হাসান সিদ্দিকী জানান, ঝড়ে কোন প্রাণহানী ঘটেনি। ক্ষতিগ্রস্তদের সহায়তায় তালিকা প্রস্তুত হচ্ছে। আর রাস্তাঘাটের উপরে পড়া গাছ ও ডালপালা কেটে চলাচল স্বাভাবিক করা হয়েছে।এদিকে উপজেলা কৃষি অফিসসূত্রে জানা গেছে ঝড়ে উঠতি ফসলের তেমন কোন ক্ষতি হয়নি। 

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ