• শনিবার   ০২ জুলাই ২০২২ ||

  • আষাঢ় ১৮ ১৪২৯

  • || ০৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

চুল ঘন করার উপায়

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ৮ মে ২০২২  

চুল যদি ঘন ও নরম হয় তবে তা আপনার সৌন্দর্য বাড়িয়ে দিতে পারে কয়েকগুণ। বর্তমানে চুল নিয়ে নানা সমস্যায় ভোগের বেশিরভাগ মানুষ। চুল পড়ে যাওয়া, চুলের আগা ফেটে যাওয়া, চুল রুক্ষ ও মলিন হয়ে যাওয়া এখন খুবই পরিচিত সমস্যা। চুল পাতলা হওয়ার কারণে মনের মতো করে চুল সাজানো যায় না। আর চুল পড়তে শুরু করলে যদি নতুন চুল না গজায় তাহলে টাক পড়ার মতো সমস্যাও অস্বাভাবিক নয়। 

চুল ঘন করার জন্য সবচেয়ে কার্যকরী হলো ঘরোয়া উপায় বেছে নেওয়া। সেইসঙ্গে খেয়াল রাখতে হবে আরও কিছু বিষয়ের প্রতি। আমাদের প্রতিদিনের ছোট ছোট কিছু কাজ, কিছু যত্ন দ্রুত চুলকে ঘন করে তুলবে। জেনে নিন সেগুলো কী-

তেল এবং সিরাম ব্যবহার

চুলে তেল ব্যবহার না করা আপনার চুল নষ্ট হয়ে যাওয়ার অন্যতম কারণ। চুল সুন্দর রাখতে চাইলে তেলের বিকল্প নেই। তাই প্রতিদিন নিয়ম করে চুলে তেল ও সিরাম ব্যবহার করবেন। এতে আপনার চুল সব ধরনের ক্ষতি থেকে রক্ষা পাবে। গোসলের আগে বা পরে চুলে সিরাম ব্যবহার করুন। বেছে নিতে হবে চুলের জন্য মানানসই সিরাম ও তেল।

চুল পরিষ্কার রাখুন

গরমের সময়ে ঘামের কারণে চুলের গোড়ায় সহজেই ময়লা জমে যায়। যে কারণে নিয়মিত চুল পরিষ্কার করতে হবে। সপ্তাহে অন্তত দুইদিন চুলে শ্যাম্পু ব্যবহার করুন। এর বেশি ব্যবহার করলে চুলের স্বাভাবিক তৈলাক্ততা নষ্ট হতে পারে।

কন্ডিশনার ব্যবহার

অনেকেই আছেন যারা চুলে শুধু শ্যাম্পু ব্যবহার করেন, কিন্তু কন্ডিশনার ব্যবহার এড়িয়ে যান। এটি মোটেও ঠিক অভ্যাস নয়। চুল ভালো রাখতে চাইলে প্রতিদিন কন্ডিশনার ব্যবহার করতে হবে। শ্যাম্পু করা শেষ হলে চুল ধুয়ে নিন। এরপর সামান্য কন্ডিশনার নিয়ে চুলের মাঝখান থেকে লাগানো শুরু করে নিচের দিকে যেতে হবে। কন্ডিশনার লাগানোর পর কিছুক্ষণ রেখে ধুয়ে নিতে হবে। 

আলতো হাতে চুল আঁচড়ান

গোসলের পর বের হয়েই অনেকে ভেজা চুল আঁচড়ানো শুরু করেন। এটি করা যাবে না। চুল কিছুটা শুকানোর সময় দিন। এরপর আলতো হাতে চুল আঁচড়ে নিন। এক্ষেত্রে সবচেয়ে ভালো হয় কাঠের চিরুনি ব্যবহার করলে। এতে চুলের গোড়া নরম হয়ে চুল পড়ার ভয় থাকবে না।

সিল্কের বালিশ

ভাবছেন চুল ঘন করার সঙ্গে সিল্কের বালিসের কী সম্পর্ক? আসলে সুতির কাপড় আর্দ্রতা শোষণ করে নেয়। তাই বালিশের কভার সুতির তৈরি হলে তা চুলের আর্দ্রতা শুঁষে নিতে পারে। তাই বালিশে সিল্কের কাপড় ব্যবহার করুন। এতে বালিশের সঙ্গে চুলের ঘর্ষণ কমবে। চুলের ডগাও কম ভাঙবে।

নিয়মিত ট্রিম করুন

চুল ঘন ও সুন্দর রাখতে চাইলে চুল নিয়মিত ট্রিম করতে হবে। কারণ চুলের আগা ভেঙে যাওয়া খুব সাধারণ সমস্যা। নিয়মিত ট্রিম করলে এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়। ফলে চুল হয় মজবুত ও সন্দর। দেড় মাস পরপর একবার করে চুলে ট্রিম করে নেবেন।

ঘরোয়া হেয়ার প্যাক ব্যবহার

চুলের যত্নে বাইরে থেকে কেনা হেয়ার প্যাকের বদলে ঘরে তৈরি হেয়ার প্যাক ব্যবহার করুন। এতে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়ার ভয় থাকে না। সেইসঙ্গে বেঁচে যায় খরচও। ঘরোয়া নানা উপকারী উপাদান দিয়ে খুব সহজেই তৈরি করে নিতে পারবেন হেয়ার প্যাক।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ