• বৃহস্পতিবার   ২৬ মে ২০২২ ||

  • জ্যৈষ্ঠ ১২ ১৪২৯

  • || ২৪ শাওয়াল ১৪৪৩

চা দিয়ে তেলের ঋণ পরিশোধ করছে শ্রীলঙ্কা

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ২৪ ডিসেম্বর ২০২১  

শ্রীলঙ্কায় বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভে ব্যাপক ঘাটতি দেখা দিয়েছে। যার কারণে চা দিয়ে তেলের দাম মেটানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে দেশটি। সংবাদমাধ্যম বিবিসির এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ৪ বছর আগে ইরানের কাছে থেকে ২৫ কোটি ১০ লাখ মার্কিন ডলারের তেল কিনেছিল শ্রীলঙ্কা। সেই দাম এখনো পরিশোধ করেনি দক্ষিণ এশিয়ার দেশটি। এর মধ্যেই দেখা দিয়েছে ভয়াবহ রিজার্ভ সংকট দেখা দিয়েছে দেশটিতে। এ অবস্থায় প্রতি মাসে কিছু পরিমাণে চা পাঠিয়ে মূল্য পরিশোধ করতে চায় লঙ্কান সরকার।

বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভে ব্যাপক ঘাটতির কারণে তেলের দাম চা দিয়ে মেটানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে শ্রীলঙ্কা। ৪ বছর আগে ইরানের কাছে থেকে ২৫ কোটি ১০ লাখ মার্কিন ডলারের তেল কিনেছিল দেশটি। 

বুধবার শ্রীলঙ্কার বৃক্ষরোপণ মন্ত্রী রমেশ পাথিরানা জানান, তারা আগামী জানুয়ারি মাস থেকে ইরানে চা পাঠানো শুরু করতে চান। সেখানে প্রতি মাসে ৫০ লাখ ডলারের চা পাঠানো হবে। এভাবে চললে চার বছর ধরে ঝুলে থাকা লেনদেন পুরোপুরি মেটাতে আরও চার বছরের বেশি সময় লাগবে দেশটির। এ প্রসঙ্গে লঙ্কান চা বোর্ডের এক কর্মকর্তা জানিয়েছেন, বিদেশি ঋণ মেটাতে এবারই প্রথম ডলারের বদলে চা পাঠাচ্ছে শ্রীলঙ্কা।

২০২২ সালে প্রায় ৪৫০ কোটি ডলার ঋণ শোধ করতে হবে শ্রীলঙ্কাকে, যার মধ্যে জানুয়ারিতেই রয়েছে আন্তর্জাতিক সার্বভৌম বন্ডের ৫০ কোটি ডলার। অথচ নভেম্বর মাসের শেষে দেশটির হাতে বৈদেশিক মুদ্রার রিজার্ভ ছিল মাত্র ১৬০ কোটি ডলার।

উল্লেখ্য, প্রতি বছর ৩৪ কোটি কেজি চা উৎপাদিত হয় শ্রীলঙ্কায়। গত বছরও দেশটি প্রায় ২৬ কোটি ৫৫ লাখ কেজি চা রপ্তানি করেছে।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ