শুক্রবার, ১৯ জুলাই ২০২৪, ৩ শ্রাবণ ১৪৩১

৩৮ বছরের পুরনো ছবির এই মিষ্টি চেহারার শিশুটিই এখন জনপ্রিয় নায়িকা

৩৮ বছরের পুরনো ছবির এই মিষ্টি চেহারার শিশুটিই এখন জনপ্রিয় নায়িকা

সংগৃহীত

বলিউডের অনেক তারকার ছোটবেলার ছবি থেকে ভক্তরা চিনতে পারেন তাকে। তবে ছবির এই ছোট্ট মেয়েকে এক ঝলক দেখে বলা যাবে না কে তিনি। ছবির এই ছোট্ট মিষ্টি মেয়েটি এখন বলিউডের জনপ্রিয় নায়িকা। তিনি ফ্যাশন আইকন হিসেবে পরিচিত বলিউড অভিনেত্রী সোনম কাপুর। ৯ জুন এই অভিনেত্রী পা রাখলেন ৩৯ বছরে।

সোনাম কাপুরের মা-বাবা ছিলেন তারকা। বাবা অনিল কাপুর অভিনেতা আর মা সুনীতা কাপুর কস্টিউম ডিজাইনার। এ কারণে বোঝার আগে থেকেই স্টার কিড হিসেবে পরিচিতি পেয়েছিলেন এই তারকা।

শৈশব থেকেই বাবাকে দেখেছেন অভিনয় করতে। মা থাকতেন সিনেমার কস্টিউম নিয়ে ব্যস্ত। এমন ব্যস্ততার মধ্যেই বেড়ে ওঠেন সোনম কাপুর। এ কারণে অভিনয়ের কোনো ইচ্ছাই তার ছিল না। বাবার কারণে তারকামহলে পরিচিত ছিলেন সোনম। পরে চেয়েছিলেন নির্মাতা হবেন। সেই ভাবনা থেকেই ২০০৫ সালে সঞ্জয় লীলা বানসালির সহকারী পরিচালক হিসেবে কাজ করেন ‘ব্ল্যাক’ সিনেমায়।

২০০৫ সালের দিকেই বানসালি বারবার সোনমকে জানান, তিনি অভিনয়ে এলে ভালো করবেন। তার অভিনয় নিয়ে চেষ্টা করা উচিত। প্রায় দেড় বছর বলার পর তিনি অভিনয় করতে রাজি হন। এমনকি সিনেমার জন্য প্রায় ৩০ কেজির মতো ওজন কমান।

খুব ছোটবেলা থেকেই পিসিওস অর্থাৎ পলিসিস্টিক ওভারিয়ান সিন্ড্রোমের শিকার হন সোনম। তিনি যখন সিঙ্গাপুরে লেখাপড়া করছেন, তখন তার ওজন গিয়ে পৌঁছেছিল ৮৬ কেজিতে। শুধু তাই নয়, ডায়াবেটিসেও আক্রান্ত হয়েছিলেন। তবে জানতেন সিনেমায় আসতে গেলে তাকে ওজন কমাতেই হবে। আর তাই বলিউডে পা রাখার আগেই নিজেকে আমূল বদলে ফেলেছিলেন।

বানসালির হাত ধরেই ২০০৭ সালে ‘সাওয়ারিয়া’ সিনেমায় অভিষেক হয় সোনম কাপুরের। তার সহ-অভিনেতা ছিলেন রণবীর কাপুর। সিনেমাটি গড়পড়তা হলেও অভিষেকের জন্য পুরস্কার পান সোনম। এরপর একের পর এক সিনেমায় অভিনয় করেছেন তিনি। তবে বিয়ে, সন্তানের কারণে বহুদিন ধরেই লাইট, ক্যামেরা, অ্যাকশন থেকে দূরে রয়েছেন সোনাম কাপুর।

সূত্র: ডেইলি বাংলাদেশ

সর্বশেষ: