• শনিবার   ০২ জুলাই ২০২২ ||

  • আষাঢ় ১৮ ১৪২৯

  • || ০৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪৩

সেন্সরের কাঁচির নিচে ‘আর আর আর’

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ২২ মার্চ ২০২২  

২৫ মার্চ মুক্তি পাচ্ছে এসএস রাজামৌলির পরবর্তী ছবি ‘আরআরআর’। হাতে আর এক সপ্তাহও বাকি নেই। ‘পুষ্পা: দ্য রাইজ’-এর প্রথম ভাগের ছবিটি মুক্তি পাওয়ার পর অন্যান্য দক্ষিণী ছবির হিন্দি ডাব সংস্করণ বক্স অফিসে তেমন উল্লেখযোগ্য ফল করতে পারেনি। কিন্তু ‘আরআরআর’ ছবির ‘হাইপ’ প্রচুর। হবে নাই না কেন? ‘বাহুবলী’র দুটি সুপার ব্লকবাস্টারের পর এসএস রাজামৌলি আনছেন আরও একটি ছবি।

এ ছবিতে মেলবন্ধন ঘটেছে বলিউড ও দক্ষিণ ইন্ডাস্ট্রির। একদিকে যেমন রয়েছেন দক্ষিণের সিনেমা জগতের দুই মহারথী রামচরণ ও জুনিয়র এনটিআর। অন্যদিকে রয়েছেন বলিউডের আলিয়া ভাট ও অজয় দেবগণ। ছবি মুক্তির আগেই জানা গেছে ‘আরআরআর’-এর সেন্সর-কাহন।

২০২১ সালের ডিসেম্বরে ছবির তেলেগু সংস্করণকে ইউ/এ সার্টিফিকেট দিয়েছে সেন্সর বোর্ড। এর অর্থ, পরিবারের সঙ্গে বসে ছবিটি দেখা যাবে। মুম্বাইয়ের বদলে ছক ভেঙে ‘আরআরআর’-এর হিন্দি সংস্করণটির সেন্সর করেছে হায়দরাবাদের অফিস।

জানা গেছে, ছবির তেলেগু সংস্করণে রয়েছে তিনটি অডিও কাট। কিছু অশ্লীল শব্দের ওপর চলেছে সেন্সরের কাঁচি। ‘ইন্ডিয়ান’ শব্দটিও সরানো হয়েছে একটি বিশেষ সংলাপ থেকে। সেই তুলনায় হিন্দি ডাব করা সংস্করণে কাঁচি চলেনি।

কাটাকুটির ফলে ‘আরআরআর’-এর তেলেগু সংস্করণের দৈর্ঘ্য ছোট হয়েছে। প্রথমে ছবিটি ছিল ৩ ঘণ্টা ৬ মিনিট ৫৪ সেকেন্ডের। কাটাকাটির পর এসে দাঁড়িয়েছে ৩ ঘণ্টা ১ মিনিট ৫৩ সেকেন্ড। প্রায় ৫ মিনিট ছেঁটে ফেলা হয়েছে ছবি থেকে। ১ মিনিট ৩৫ সেকেন্ডের একটি লম্বা দৃশ্য কেটে উড়িয়ে দেওয়া হয়েছে। কৃতজ্ঞতা তালিকা কমিয়ে ফেলা হয়েছে। করা হয়েছে ৩ মিনিট ২৬ সেকেন্ড।

নভেম্বরের মধ্যেই নাকি সেন্সর বোর্ডের রিপোর্ট কার্ড পেয়ে গিয়েছিলেন নির্মাতারা। ছবি মুক্তি পাওয়ার কথা ছিল চলতি বছরের ৭ জানুয়ারিতে। করোনার তৃতীয় ঢেউয়ের কারণে পিছিয়ে নতুন তারিখ হয় ২৫ মার্চ।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ