• সোমবার   ২৫ জানুয়ারি ২০২১ ||

  • মাঘ ১২ ১৪২৭

  • || ১১ জমাদিউস সানি ১৪৪২

১৮

হঠাৎ অন্ধকারে নিমজ্জিত পাকিস্তান

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ১০ জানুয়ারি ২০২১  

বিদ্যুৎ বিভ্রাটে অন্ধকারে ডুবলো পাকিস্তানের একের পর এক শহর । শনিবার (৯ জানুয়ারি) মাঝরাতের কিছু আগে বিদ্যুৎ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায় পাকিস্তানের বিস্তীর্ণ এলাকা। জানা যায় জাতীয় পাওয়ার গ্রিডে সমস্যার কারণেই এই বিভ্রাট হয়েছে।

পাকিস্তানে একের পর এক শহর থেকে বিদ্যুৎ বিভ্রাটের এই খবর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়তে থাকে। পাশাপাশি বাড়তে থাকে সরকারের নানামুখী সমালোচনা। করাচি, লাহোর, ইসলামাবাদ, মুলতান, কাসুর থেকে শুরু করে একের পর এক শহর থেকে বাসিন্দারা বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন হওয়ার বিষয়টি তুলে ধরেন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। দেশের মন্ত্রী ও দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্তারাও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জানাতে থাকেন বিভ্রাটের কারণ ও বিষয়টি সুরাহা করার কথা।

ইসলামাবাদের ডেপুটি কমিশনার হামজা শাফকাত টুইট বার্তায় জানান, ন্যাশনাল ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডেসপ্যাচ কম্পানির সিস্টেমে ট্রিপ হয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক হতে কিছুটা সময় লাগবে।

পাকিস্তানের বিদ্যুৎমন্ত্রী ওমর আয়ুব খান টুইট বার্তায় জানিয়েছেন, ‘পাওয়ার ট্রান্সমিশন সিস্টেমে ফ্রিকোয়েন্সি এক ধাক্কায় অনেকটা নেমে যাওয়ায় দেশজুড়ে বিদ্যুৎ বিভ্রাট তৈরি হয়েছে । কেন এমনটা ঘটল তা ইতিমধ্যেই খতিয়ে দেখার প্রক্রিয়া শুরু হয়েছে বলেও জানান তিনি । পাশাপাশি নাগরিকদের শান্ত থাকার জন্যও অনুরোধ করেন।

বিভ্রাটের কারণে বিদ্যুৎ সংযোগ থেকে বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে পাকিস্তান অধ্যুষিত কাশ্মীরও । বেশ কিছু মোবাইল ও ইন্টারেনেট পরিষেবার ওপরেও পড়েছে প্রভাব। করাচির জিন্না আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরের পরিষেবাও ব্যাহত হয় বিভ্রাটের কারণে।

সরকারের সমালোচনা করে কেউ কেউ সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম টুইটারে ১৯৯৯ সালে শেষ বার যখন দেশে বড়সড় ব্ল্যাকআউট হয়েছিল, সেই সময়ের কথা তুলে ধরেন। প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ় শরিফকে সে সময় পারভেজ় মুশাররফ গ্রেফতার করেছিলেন। পাকিস্তানে তখন সামরিক শাসনও জারি হয়েছিল।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আন্তর্জাতিক বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর