• রোববার   ০৭ মার্চ ২০২১ ||

  • ফাল্গুন ২৩ ১৪২৭

  • || ২৩ রজব ১৪৪২

সাইনোসাইটিসের সমস্যা দূর করবে লবঙ্গ

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ১১ নভেম্বর ২০২০  

রান্নাঘরের এই ছোট্ট উপাদানে রয়েছে হাজারো উপকারিতা। লবঙ্গ মূলত ইন্দোনেশিয়ার চিরহরিৎ ক্লোভ গাছের সুগন্ধযুক্ত গোলাপী ফুলের অপ্রস্ফুটিত কুসুম। এটি পৃথিবীর অন্যতম জনপ্রিয় মশলা। 

খাবারে মিষ্টি স্বাদ আনার বাইরেও এর রয়েছে অসংখ্য ওষুধিগুণ। বলা যায়, আমাদের শরীরে জাদুর মতোই কাজ করবে এটি। একটা ছোট্ট লবঙ্গের কারসাজি অনেক। চলুন তবে জেনে নেয়া যাক এই মশলাটির উপকারিতা সম্পর্কে- 

> ডায়াবেটিসে আক্রান্ত ব্যক্তির শরীরে প্রয়োজনীয় ইনসুলিন তৈরি হতে পারে না। গবেষণায় পাওয়া গেছে যে, লবঙ্গের রস শরীরের ভিতরে ইনসুলিন তৈরিতে সাহায্য করে ও কর্মক্ষমতা বাড়িয়ে দেয়, এবং রক্তে সুগারের মাত্রা নিয়ন্ত্রণে রাখে। ফলে স্বাভাবিকভাবেই রক্তে শকর্রার মাত্রা বৃদ্ধির আশঙ্কা কমে যায়। নিয়মিত লবঙ্গ খেয়ে ডায়াবেটিস নিয়ন্ত্রণ করা সহজ।

> লবঙ্গ দাঁতের ব্যথা দূর করে। মাড়ির ক্ষয় নিরাময় করে। লবঙ্গতে উপস্থিত অ্যান্টি-ইনফ্লেমেটরি উপাদান শরীরে প্রবেশ করার পর এমন কিছু বিক্রিয়া করে যে নিমেষে দাঁতের যন্ত্রণা কমে যায়। প্রায় সব টুথপেস্টের কমন উপকরণ এই লবঙ্গ।

> ট্রেনে বা বাসে যাওয়ার সময় যদি মাথা ঘুরতে থাকে ও বমি এসে যায়, তাহলে মুখে একটি লবঙ্গ রেখে সেই রস চুষলে বমি ভাব ও মাথা ঘোরা কমে যাবে। গর্ভবতী মায়েরা সকালের বমি বমি ভাব দূর করতে লবঙ্গ চুষতে পারেন। লবঙ্গের সুগন্ধ বমি বমি ভাব দূর করে।

> সর্দিকাশির মহৌষধ হিসেবে লবঙ্গ বহু বছর ধরেই ব্যবহৃত হয়ে আসছে। লবঙ্গ চিবিয়ে রস গিলে খেলে বা লবঙ্গ মুখে রেখে চুষলে কফ, ঠান্ডা লাগা, অ্যাজমা, গলাফুলে ওঠা, রক্ত পিত্ত আর শ্বাসকষ্টসহ এই সকল সমস্যা থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।

> সাইনোসাইটিস রোগে লবঙ্গ খুব উপকারি। সাইনোসাইটিসের রোগীদের চিকিৎসায় লবঙ্গ ওষুধ হিসেবে ব্যবহৃত হয়। লবঙ্গে বিদ্যমান ইগুয়েনাল নামে একটি উপাদান আছে, যা সাইনাসের কষ্ট কমাতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ