শনিবার   ২৯ ফেব্রুয়ারি ২০২০   ফাল্গুন ১৬ ১৪২৬   ০৫ রজব ১৪৪১

দুদকের মামলায় সাজার হার প্রায় ৭০ শতাংশে উন্নীত

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ১৪ ফেব্রুয়ারি ২০২০  

দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) কর্মকর্তাদের তদন্তের সক্ষমতা বৃদ্ধির কারণেই দুদকের মামলায় সাজার হার প্রায় ৭০ শতাংশে উন্নীত হয়েছে বলে জানিয়েছেন সচিব মুহাম্মদ দিলোয়ার বখ্ত। বৃহস্পতিবার দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) কর্মকর্তাদের এক বিশেষ প্রশিক্ষণ কর্মসূচির সার্টিফিকেট বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় তিনি এ কথা বলেন। রাজধানীর ফিন্যান্সিয়াল ম্যানেজমেন্ট একাডেমী (ফিমা) মিলনায়তনে এ অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। ফিমার মহাপরিচালক মনোয়ারা হাবীব এর সভাপতিত্ব করেন।

দুদক সচিব বলেন, চিহ্নিত দুর্নীতি পরায়ণদের আইনের আওতায় সোপর্দ করার সক্ষমতা বৃদ্ধির জন্যই দুদক কর্মকর্তাদের এ জাতীয় প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে। শুধু দেশে নয়, বিদেশেও কর্মকর্তাদের প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে। কর্মকর্তাদের তদন্তের সক্ষমতা বৃদ্ধির কারণেই দুদকের মামলায় সাজার হার প্রায় ৭০ শতাংশে উন্নীত হয়েছে । যা এক সময় ৩০ শতাংশেরও কম ছিল।

তিনি বলেন, দুদক ও সিএজি নিজ নিজ ম্যান্ডেটের মাধ্যমেই দুর্নীতি, অনিয়ম ও সরকারি অর্থের অপচয় রোধে কাজ করছে। এ জাতীয় প্রতিষ্ঠানগুলো তথ্য ও জ্ঞান বিনিময়ের মাধ্যমে সরকারি আর্থিক ব্যবস্থাপনায় দুর্নীতি, অনিয়ম ও অনৈতিকতা নিয়ন্ত্রণে কার্যকর ভূমিকা রাখতে পারে।

পরস্পর যোগসাজশে যখন দুর্নীতি হয় তার সঠিক তথ্য পাওয়া কমিশনের পক্ষে সত্যিই কঠিন উল্লেখ করে সচিব বলেন, এক্ষেত্রে অডিট বিভাগ দুদককে সাহায্য করতে পারে। এ জাতীয় তথ্য পেলে অভিযোগের অনুসন্ধান ও মামলা দায়েরের অনুপাতের ইতিবাচক বৃদ্ধি ঘটতে পারে। শুধু অডিট বিভাগ নয়, প্রতিটি মন্ত্রণালয় ও বিভাগের দায়িত্ব স্ব-স্ব শুদ্ধাচার ফোকাল পয়েন্ট কর্মকর্তাদের মাধ্যমে নিজ নিজ দফতরের দুর্নীতির তথ্য দুদকে পাঠালে দুদক আরো বস্তুনিষ্ঠ অভিযোগ পেতে পারে।

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ
এই বিভাগের আরো খবর