• শুক্রবার   ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২০ ||

  • আশ্বিন ৯ ১৪২৭

  • || ০৭ সফর ১৪৪২

৪২

আঙিনায় জায়গা ছিল না, তাই বুমরাহর ছোট্ট রান-আপ

আলোকিত সিরাজগঞ্জ

প্রকাশিত: ১ জুন ২০২০  

বোলিং রান-আপ ছোট, কিন্তু বলের গতি তীব্র। মাত্র কয়েক কদম দৌড়ে এসে যেভাবে গতির ঝড় তোলেন জাসপ্রিত বুমরাহ, ক্রিকেটে বিশ্বের অনেকের কাছেই তা বড় বিস্ময়। সময়ের অন্যতম সেরা এই ফাস্ট বোলার এবার খোলাসা করলেন তার ছোট রান-আপের পেছনের ঘটনা।

ক্রিকেট ইতিহাসে গতিময় ফাস্ট বোলারদের ক্ষেত্রে সবারই দেখা গেছে বেশ বড় রান-আপ। সেই ওয়েস হল থেকে শুরু করে ডেনিস লিলি, মাইকেল হোল্ডিং, শোয়েব আখতার, ব্রেট লি, শন টেইটদের রান-আপ ছিল অনেক লম্বা। বুমরাহ সেখানে আশ্চর্য ব্যতিক্রম। ৮-৯ কদম দৌড়েই গতি দেড়শ কিলোমিটারের আশেপাশে রাখেন নিয়মিত।

জনপ্রিয় ক্যারিবিয়ান ধারাভাষ্যকার ও সাবেক ফাস্ট বোলার ইয়ান বিশপ যেমন কদিন আগে বলেছেন, তিনি ভেবেই পান না, এই রান-আপে এত গতি কীভাবে তুলতে পারেন বুমরাহ। সেই বিশপ ও আরেক সাবেক পেসার শন পোলকের সঙ্গে রোববার আইসিসির একটি ডিজিটাল আয়োজনে বুমরাহ নিজেই জানালেন তার রান-আপের রহস্য।

“ আমি বাড়ির আঙিনায় খেলে বেড়ে উঠেছি। আমার রান-আপ এত ছোট, কারণ আমাদের আঙিনায় খুব বেশি জায়গা ছিল না। যে রান-আপ দেখছেন, এইটুকুই সর্বোচ্চ নিতে পারতাম তখন। হয়তো সে কারণেই এই রান-আপে অভ্যস্ত হয়ে গেছি।”

“বড় রান-আপে বোলিং করার চেষ্টা অবশ্য করেছি। কিন্তু দেখলাম, গতি বাড়ছে না, কিছুই বদলাচ্ছে না। তাহলে কেন অযথা কষ্ট করে বড় রান-আপ নেব!”

রান-আপের মতো বুমরাহর বোলিং অ্যাকশনও অদ্ভূত। সেটি নিয়েও লোকের কৌতূহলের শেষ নেই। বুমরাহ এই প্রসঙ্গেও জানালেন চমকপ্রদ তথ্য।

“ সত্যি কথা বলতে, খুব বেশি কোচিং আমি পাইনি। কোনো পেশাদার কোচিং বা ক্যাম্পে কখনও যোগ দেইনি। এখনও পর্যন্ত, সবকিছু নিজে শিখেছি। টিভি দেখে, ভিডিও দেখে। আপনাআপনি হয়েছে। সুনির্দিষ্ট কোনো কারণ নেই এমন অ্যাকশনের।”

“ অ্যাকশন নিয়ে অনেকেই অবশ্য অনেক কিছু বলেছে বদলাতে। আমি কখনোই তাতে কান দেইনি। নিজের ওপর বিশ্বাস ছিল আমার, স্রেফ চেয়েছি এটিতেই উন্নতি করে যেতে।”

আলোকিত সিরাজগঞ্জ
আলোকিত সিরাজগঞ্জ
খেলা বিভাগের পাঠকপ্রিয় খবর